প্রথম পাতা খবর ‘আমজনতা-বিরোধী’, ভারতীয় ন্যায় সংহিতা-র তীব্র বিরোধিতায় মমতা

‘আমজনতা-বিরোধী’, ভারতীয় ন্যায় সংহিতা-র তীব্র বিরোধিতায় মমতা

305 views
A+A-
Reset

কলকাতা: দেশের আইন ব্যবস্থা ঢেলে সাজাতে ভারতীয় দণ্ডবিধির খোলনোলচে বদলে ফেলতে সংসদে নয়া বিল  ‘ভারতীয় ন্যায় সংহিতা’ পেশ করেছে কেন্দ্রের নরেন্দ্র মোদী সরকার। কেন্দ্রের প্রস্তাবিত সেই ‘ভারতীয় ন্যায় সংহিতা’র নিয়ে এবার ফুঁসে উঠলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়। তাঁর কথায়, “এই খসড়াগুলিতে চুপিসারে অত্যন্ত কঠোর আমজনতা-বিরোধী কিছু বিধি নিয়ে আসার চেষ্টা চলছে।”

সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মে মমতা লেখেন, “কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক ইন্ডিয়ান পেনাল কোড বা ভারতীয় দণ্ডবিধি, কোড অব ক্রিমিনাল প্রসিডিওর, ইন্ডিয়ান এভিডেন্স অ্যাক্টের বিকল্প হিসাবে যে খসড়া করেছে সেটা দেখলাম। এটা পড়ে হতবাক হয়ে গিয়েছি। এটা দেখে অবাক হয়ে গেলাম যে অত্যন্ত নিষ্ঠুর ও অবদমন করার জন্য নাগরিক বিরোধী প্রস্তাব আনা হয়েছে। আগে ছিল দেশদ্রোহী আইন। আর এখন সেই আইনকে তুলে দেওয়ার নাম করে যেটা আনা হচ্ছে এর মাধ্য়মে আরও নিষ্ঠুর ও কড়া আইন আনা হচ্ছে। প্রস্তাবিত ভারতীয় ন্যায় সংহিতার নাম করে এসব করা হচ্ছে। এতে নাগরিকরা মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবেন”।

কেন্দ্রকে নিশানা করে মুখ্যমন্ত্রী লিখছেন, “বর্তমান আইনগুলি কেবল আকারে নয়, আত্মার মধ্যেও ঔপনিবেশিকতা মুক্ত হওয়া উচিত। ফৌজদারি বিচার ব্যবস্থার গণতান্ত্রিক অবদানের জন্য এই খসড়াগুলি গুরুত্ব সহকারে অধ্যয়ন করার জন্য দেশের আইনবিদ এবং জনসাধারণ কর্মীদের অনুরোধ করুন। সংসদে আমার সহকর্মীরা স্থায়ী কমিটিতে এই বিষয়গুলি উত্থাপন করবেন যখন এগুলো নিয়ে আলোচনা হবে। অভিজ্ঞতার আলোকে আইনের উন্নতি করা দরকার, কিন্তু ঔপনিবেশিক কর্তৃত্ববাদকে দিল্লিতে পিছনের দরজা দিয়ে প্রবেশের অনুমতি দেওয়া উচিত নয়”।

প্রসঙ্গত, ভারতীয় দণ্ডবিধি, ফৌজদারি দণ্ডবিধি ও ভারতীয় সাক্ষ্য আইনে বদল আনতে চাইছে কেন্দ্র। সংসদের বিশেষ অধিবেশন চলাকালীন এগুলিকে পরিবর্তন করার জন্য তিনটি বিলও পাশ হয়েছে। ব্রিটিশ ঔপনিবেশিকতাবাদের সময় থেকে চলে আসা এই আইনগুলিতে পরিবর্তন আনতে চায় কেন্দ্র। এই তিনটি পরিবর্তন করার জন্য স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক যে খসড়া তৈরি করেছে, তা ইতিমধ্যেই নেড়েচেড়ে দেখেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এর পরই তাঁর এই তীব্র প্রতিক্রিয়া।

আরও খবর

মন্তব্য করুন

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

সম্পাদকের পছন্দ

টাটকা খবর

©2023 newsonly24. All rights reserved.